বুধবার, ১লা ডিসেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, ১৬ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ২৬শে রবিউস সানি, ১৪৪৩ হিজরি.
সাপ্তাহিক জন্মভূমি পড়তে এখানে ক্লিক করুন

ইসরাইলে কর্মরত প্রত্যেক থাই নারীকে যৌন হেনস্থা করা হয়েছে : রিপোর্ট

২১-অক্টো-২০২১ | jonmobhumi | 14 views

Spread the love

ইসরাইলে বিদেশী শ্রমিক হিসেবে কর্মরত প্রত্যেক থাই নারী যৌন হেনস্থার স্বীকার হয়েছেন বলে জানানো হয়েছে এক নতুন প্রতিবেদনে। মঙ্গলবার ইসরাইলি পার্লামেন্ট নেসেটে বিদেশী শ্রমিকদের নিয়ে কাজ করা একটি বিশেষ কমিটির পক্ষ থেকে এ নতুন প্রতিবেদনটি প্রকাশ করা হয়।

নেসেটের ওই প্রতিবেদনে আরো বলা হয়েছে, ইসরাইলের কৃষিখাতে যে সকল বিদেশী (নারী) শ্রমিক কাজ করেন তাদের প্রক্যেককেই যৌন হেনস্থা করা হয়েছে। এ প্রতিবেদনের মাধ্যমে মারাত্মক যৌন হেনস্থার (ধর্ষণ, যৌন নিপীড়ন) চিত্র ধরা পড়েছে। যে সকল ইসরাইলি কর্মকর্তা এ প্রতিবেদনটি প্রস্তুত করেছেন তারা হুঁশিয়ারি দিয়ে বলেছেন, ইসরাইলের রাষ্ট্র ব্যবস্থা এসব নারীদের পরিত্যাগ করেছে, তাই তাদের এমন অবস্থা।

অভিবাসন বিশেষেজ্ঞ ড. ইয়াহেল কুরল্যান্ডার ও ড. শাহর শোহাম এ প্রতিবেদনটি প্রস্তুত করেন। ওই প্রতিবেদনে দেখা গেছে, ১০০ শতাংশ অর্থ্যাৎ প্রত্যেক বিদেশী নারী শ্রমিক যৌন হেনস্থার শিকার। ওই প্রতিবেদন তৈরির সময় ৬৫৪ থাই নারীকে যৌন হেনস্থার বিষয়ে প্রশ্ন করা হয়েছিল, তারা সকলে বলেছেন যে তারা ধর্ষণ ও অন্যান্য যৌন নিপীড়নের শিকার।

ইসরাইলে ২৫ হাজারের বেশি থাই শ্রমিক কাজ করেন। ইসরাইলের কৃষিখাত ও তার সাথে সংশ্লিষ্ট শিল্পে সবচেয়ে বেশি শ্রমিক সরবরাহ করে থাইল্যান্ড। এ কৃষিখাতে কাজ করা শ্রমিকরাই বেশি যৌন হেনস্থার শিকার।

জেরুসালেম পোস্টের এক প্রতিবেদনে ড. ইয়াহেল কুরল্যান্ডার বলেন, ইসরাইলের রাষ্ট্র ব্যবস্থা এসব নারীদের পরিত্যাগ করেছে, তাদের জন্য কোনো সুবিচার নিশ্চিত করেনি। এক নারী এ বিষয়ে অভিযোগ করতে চেয়েছে। কিন্তু, এ ক্ষেত্রে অভিযোগ করার কোনো যথাযত প্রক্রিয়া নেই।

সবচেয়ে ভয়ঙ্কর ব্যাপার হলো, ইসরাইল সরকারের কোনো পরিসংখ্যান বা প্রতিবেদনে এ সকল অপরাধের বিষয়ে কোনো পূর্ণাঙ্গ চিত্র নেই। এ কারণে এসব অপরাধের ভয়াবহতা সম্পর্কে তেমন কিছু জানা যায় না।

সূত্র : মিডল ইস্ট মনিটর

সার্চ/অনুসন্ধান করুন