বুধবার, ১লা ডিসেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, ১৬ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ২৬শে রবিউস সানি, ১৪৪৩ হিজরি.
সাপ্তাহিক জন্মভূমি পড়তে এখানে ক্লিক করুন

চল্লিশেও চালিয়ে যেতে চান ফেদেরার

১৩-আগ-২০২০ | jonmobhumi | 484 views
r federar

Spread the love

একে তো করোনাভাইরাস মহামারি তার ওপর হাঁটুর চোট। রজার ফেদেরার গত মাসেই জানিয়েছিলেন, এ বছর আর টেনিস কোর্টে নামা হচ্ছে না তাঁর। ছেলেদের টেনিসে সর্বোচ্চ গ্র্যান্ড স্ল্যাম জয়ের রেকর্ড গড়া ৩৮ বছর বয়সী এই কিংবদন্তি এবার অবসরের ইঙ্গিতও দিয়ে রাখলেন।

আগামী মাসেই ৩৯ বছরে পা রাখবেন ফেদেরার। সর্বশেষ তাঁকে টেনিস কোর্টে দেখা গেছে এ বছর জানুয়ারিতে অস্ট্রেলিয়ান ওপেনে। সেমিফাইনালে নোভাক জোকোভিচের কাছে হেরেছিলেন সুইস তারকা। এরপর চোটে পড়েন। এবার তিনি জানালেন, ২০২১ সালের আগে অবসর নেওয়ার কোনো ইচ্ছে নেই তাঁর। টোকিও অলিম্পিক খেলার দৃঢ়সংকল্প করেছেন ফেদেরার। তার মানে চল্লিশেও চালিয়ে যাওয়ার ইচ্ছে তাঁর।

ফেদেরারের অবসর নিয়ে কথা ওঠা নতুন কিছু নয়। কয়েক বছর ধরে সংবাদমাধ্যমে এ নিয়ে কথা হচ্ছে। ফেদেরার নিজে অবশ্য মনে করেন, এ নিয়ে আলোচনা হচ্ছে প্রায় এক দশকেরও বেশি সময় ধরে, ‘২০০৯ ফরাসি ওপেন জয়ের পর থেকে সংবাদমাধ্যম এ নিয়ে কথা বলছে। তবে এটা পরিষ্কার যে আমি ক্যারিয়ারের শেষ প্রান্তে পৌঁছে গেছি। আগামী দুই বছরে কী ঘটবে বলতে পারি না। তাই প্রতি বছর ধরে ধরে পরিকল্পনা করি। শরীর যখন আর সায় দেবে না, থেমে যাব। বুড়ো বয়সেও টেনিস খেলব তবে অনুশীলনটা করব না। শুধু বল নিয়ে খেলব।’ স্পোর্টসপ্যানারোমাকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে এসব কথা বলেন ফেদেরার।

ফেদেরার এ বছর আর কোর্টে না নামায় রাফায়েল নাদাল ও জোকোভিচের বেশ সুবিধা হলো। এ বছর আরও দুটি গ্র্যান্ড স্ল্যাম গড়ানোর সম্ভাবনা আছে। নাদাল ১৯ গ্র্যান্ড স্ল্যাম জিতে নিশ্বাস ফেলছেন ফেদেরারের (২০) কাঁধে। ১৭ গ্র্যান্ড স্ল্যাম জিতেছেন জোকোভিচ।

টোকিও অলিম্পিক এ বছর ২৪ জুলাই থেকে শুরু হওয়ার কথা ছিল। করোনা মহামারিতে অলিম্পিক পিছিয়ে আগামী বছর নেওয়া হয়েছে। ২০২১ সালের ২৩ জুলাই নতুন সূচি ঠিক করা হয়েছে টোকিও অলিম্পিকের।

সার্চ/অনুসন্ধান করুন